স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের ডিজির পদত্যাগ

ঢাকা: করোনাকালে মাস্ক কেলেঙ্কারিসহ বিভিন্ন কর্মকাণ্ডে সমালোচনার মুখে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক (ডিজি) অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদ পদত্যাগ করেছেন।

মঙ্গলবার (২১ জুলাই) জনপ্রশাসন সচিব শেখ ইউসুফ হারুনের দপ্তরে তিনি নিজে গিয়ে পদত্যাগপত্র জমা দিয়েছেন।

সন্ধ্যায় স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের সচিব মো. আব্দুল মান্নান বাংলানিউজকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

জনপ্রশাসন সচিব শেখ ইউসুফ হারুন বাংলানিউজকে বলেন, আমি অফিস থেকে চলে আসার পর তিনি পদত্যাগ করেছেন। তার পদত্যাগপত্র গ্রহণের মালিক আমি নই।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের একজন কর্মকর্তা বলেন, সরকারের কর্মকর্তা হিসেবে তার পদত্যাগপত্র এখন রাষ্ট্রপতির কাছে যাবে। সেখান থেকেই চূড়ান্ত হবে।

প্রথম দফায় স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের ডিজির দায়িত্বে থাকা অবস্থায় অবসর-উত্তর ছুটিতে যাওয়া আবুল কালামকে ২০১৯ সালের ২৭ মার্চ অবসর-উত্তর ছুটি বাতিল করে দুই বছরের জন্য চুক্তি ভিত্তিক নিয়োগ দেওয়া হয়।

তখনকার আদেশে বলা হয়, বিসিএস (স্বাস্থ্য) ক্যাডারের এ কর্মকর্তা ওই বছরের ১৫ এপ্রিল অথবা যোগদানের তারিখ থেকে পরবর্তী দুই বছর মেয়াদে তাকে চুক্তিভিত্তিক নিয়োগ দেওয়া হলো। সে অনুযায়ী ২০২১ সালের এপ্রিলে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালকের মেয়াদ শেষ হওয়ার কথা ছিল।

সম্প্রতি সরকারি হাসপাতালের জন্য এন-৯৫ মাস্ক কেনা এবং করোনা চিকিৎসায় লাইসেন্সের মেয়াদ উত্তীর্ণ রিজেন্ট হাসপাতালের সঙ্গে চুক্তি করা নিয়ে ব্যাপক সমালোচনায় পড়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর।

     আরও খবর দেখুন

ফেসবুক